৯ বছরের শিশুর বুদ্ধিতে মৃ;ত্যুর হাত থেকে রক্ষা পেল বাবা-মা

ঝড়ের কার;ণে বিদ্যুৎ ছিল না বাড়িতে। বিদ্যুৎ সমস্যা দূর করতে জেনা;রেটর ভাড়া করেছিলেন এক দম্পতি। কিন্তু সেই জেনারেটরই যে কাল হবে তা ভাব;তেই পারেননি তারা।

জেনারেটর থেকে নির্গত বিষাক্ত কার্বন মনো;অক্সাইড গ্যাসে প্রা;ণ যেতে বসেছিল তাদের। তবে নয় বছরের মেয়ের সম;য়োচিত ও বু;দ্ধিদীপ্ত পদক্ষেপে প্রা;ণে বেঁচে যান তারা। সিএনএন বৃহস্পতিবার এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, যুক্ত;রাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটস অঙ্গরাজ্যের ব্রকটনে চলতি বছরে;র ২৮ অক্টোবরে এই ঘটনা ঘটে।

সিএনএনকে জেলিন বার;বোসা ব্রান্ডাও নামের ওই শিশুটি জানায়, ওইদিন রাতে ঘু;মাতে চলে গিয়েছিল সে। হঠাৎ বাবার চি;ৎকার শুনে দৌঁড়ে বাবার কাছে গিয়ে দেখে, তার মা অ;চেতন হয়ে গেছে। বাবাও আস্তে আস্তে নিস্তে;জ হয়ে যাচ্ছিলেন। এ সময় বাবার মো;বাইল ফোন নিয়ে জরুরি সেবার নম্বরে ফোন দিতে গিয়েছিল সে। কিন্তু বাবার আই;ফোন ফেস লক করা ছিল। এই পরিস্থিতিতেও বুদ্ধি হারা;য়নি জেলিন। বাবার মুখে;র কাছে ফোন ধরে ফোনটি আন লক করে জরুরি পরিষে;বায় ফোন দেয় সে।

এর পর সাত বছর বয়সী বোন;কে নিয়ে প্রতিবে;শীদের কাছে সাহায্য চাইতে যায় জেলিন। পরে তার বাবা-মাকে উ;দ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হয়। জেলিনের তাৎ;ক্ষণিক নেওয়া সিদ্ধা;ন্তই তার বাবা-মায়ের প্রা;ণ বাঁচিয়েছে বলে ওই প্রতি;বেদনে বলা হয়েছে।

মার্কিন কনজি;উমার প্রোডাক্টস সেফটি কমিশন সতর্ক করেছে যে, বাতাসে ১৫০ থেকে ২০০ পিপি;এমের উপরে কার্বন ম;নোঅক্সা;ইডের উপস্থিতর কারণে সাময়ি;কভাবে জ্ঞান হারা;নো থেকে শুরু করে মৃ;ত্যু পর্যন্ত হতে পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.